জুলাই ২৭, ২০২০
১:২৩ পূর্বাহ্ণ

কাজ শেষ হবার আগেই সিলেট-ভোলাগঞ্জ বঙ্গবন্ধু মহাসড়কে উঠতে শুরু করেছে ঢালাই।

আজকের খবর: ৮৫০ কোটি টাকা ব্যায়ে সিলেট-ভোলাগঞ্জ বঙ্গবন্ধু মহাসড়ক এর  নির্মান কাজ করছে স্পেক্ট্রা ইন্জিনিয়ারিং লিমিটেড নামে প্রতিষ্ঠান। ২০১৭ সাল থেকে কাজ শুরু হয়ে এখন প্রায় শেষের দিকে। যদিও ২০২০ সালের মার্চের দিকে কাজ শেষ হয়ার কথা ছিল। কিন্তু কাজ শেষ হবার আগেই এই সড়কে ফাটল দেখা দিয়েছে। আর এ নিয়ে চলছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চুল-ছেঁড়া বিশ্লেষণ।



২৬ জুলাই সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় কোম্পানীগঞ্জের ইসলামপুর নামক স্থানে বঙ্গবন্ধু মহাসড়কে বেশ কয়েকটি ফাটল সৃষ্টি হয়েছে। সেই ফাটল থেকে টুকরো-টুকরো করে ঢালাই উঠে যাচ্ছে। এলাকার সচেতন মহল রাস্তার স্থায়িত্ব নিয়ে প্রশ্ন তুলে বলেন, নির্মাণ কাজ চলাকালীন অবস্থায় যদি রাস্তার ফাটল দেখা দেয় এবং টুকরো-টুকরো হয়ে ঢালাই উড়তে থাকে তাহলে এর স্থায়িত্ব কাল অর্ধশত বছর ধরলেও বেশি দিন টিকবে না।

উল্লেখ্য ২০১৯ সালে বঙ্গবন্ধু মহাসড়কের হাইটেক পার্ক সংলগ্ন স্থানে রাস্তার একসাইট দেবে যায়। বিভিন্ন পত্রিকায় খবরটি প্রকাশ হওয়ায় প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ স্থানটি পরিদর্শনে আসেন। পরবর্তীতে কর্তৃপক্ষ সাইনবোর্ড টানিয়ে গাড়ী চলাচল বন্ধ রেখে ফের ঐ সাইডের কাজ সম্পন্ন করে।
বঙ্গবন্ধু মহাসড়কে ফাটল
এ বিষয়ে স্পেক্ট্রা ইঞ্জিনিয়ারিং লিমিটেড এর রোডস এন্ড হাইওয়ে ইঞ্জিনিয়ার মোঃ আসিফ এর সাথে কথা হলে তিনি বলেন, এই ফাটল ইন্টারনাল কোন ফ্যাক্ট নয়, এটা বাহ্যিক প্রবলেম। তিনি আরো বলেন, এই ধরনের কাজ বাংলাদেশে এটাই প্রথম। তাই আমরা যখন কাজ শুরু করি ইসলামপুর থেকে টুকের বাজার পর্যন্ত ছিল আমাদের প্রথম কাজ। শুরুতে আমাদের একটু কাজ বুঝে নিতে সময় লেগেছে। তাই হয়তো এই অংশে বাহ্যিক কিছুটা ফাটল দেখা দিয়েছে। কাজ শেষ হবার পরেও দুই বাছর তদারকির দ্বায়িত্ব আমাদের। যদি কোন প্রবলেম হয় এটা সমাধান করা হবে।

শেয়ার করুন

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *