নভেম্বর ১১, ২০২০
৪:১৫ অপরাহ্ণ

বদলগাছীতে ৯ম শ্রেণীর স্কুল ছাত্রকে অপহরণের পর মুক্তিপণ দাবি – টাকা না পেয়ে কিশোরকে হত্যা

বুলবুল আহম্মেদ ( বুলু) বদলগাছী (নওগাঁ) প্রতিনিধি,
নওগাঁর বদলগাছীতে অপহরণকারীরা মুক্তিপনের(১৫) লক্ষ টাকা পনোরো লাখ টাকা না পেয়ে এক কিশোরকে হত্যা করেছে। আজ বুধবার সকালে জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলার বেগুনবাড়ি মাঠের একটি ডোবা থেকে তার বস্তাবন্দি অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। আক্কেলপুর থানা পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে।

নিহত ওই কিশোরের নাম নাজমুল হোসেন( মিরু) (১৪)। সে বদলগাছী উপজেলার খাদাইল গ্রামের আলামীনের ছেলে। নাজমুল খাদাইল উচ্চবিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্র ছিল। গত শুক্রবার সন্ধ্যায় এক মেয়ে মুঠোফোনে তাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। পরদিন শনিবার সকালে নাজমুলের মুক্তিপনের জন্য মুঠোফোনে তার পরিবারের কাছে পনেরো লাখ টাকা দাবি করা হয়। এরপর থেকেই নাজমুল নিখোঁজ ছিল। আজ বুধবার সকালে তার বস্তাবন্দি অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করা হয়।

নাজমুলের বাবা আলামীন বলেন, শুক্রবার সন্ধ্যায় আমার ছেলেকে মুঠোফোনে বাড়ি থেকে ডেকে নেওয়া হয়। সে শুক্রবার রাতে আর বাড়িতে ফিরেনি। পরদিন শনিবার সকাল দশটা পাঁচ মিনিটে অপরিচিত একটি মুঠোফোন নম্বর থেকে আমার বড় ছেলে মেহেদী হাসানের মুঠোফোনে কল করে নাজমুলের মুক্তিপনের জন্য পনোরো লাখ চাওয়া হয়। এরপর আমরা মুঠোফোনে কলের জন্য অপেক্ষা ছিলাম। অপহরণকারীরা আর আমাদের কাছে ফোন করেনি। এঘটনায় শনিবার বদলগাছী থানায় একটি মামলা করেছিলাম। আজ বুধবার সকালে আক্কেলপুর বেগুনবাড়ি গ্রামের ফসলি মাঠের রেললাইন সংলগ্ন একটি ডোবায় একব্যক্তির বস্তাবন্দি অর্ধগলিত লাশ পাওয়া যায়। আমরা সেখানে গিয়ে আমার অপহৃত ছেলে নাজমুলের লাশটি শনাক্ত করেছি।

আক্কেলপুর থানার পরির্দশক (তদন্ত) শাহ আলম জানান, আজ বুধবার সকালে বেগুনবাড়ি গ্রামের ফসলি মাঠের ডোবায় প্লাস্টিকের বস্তাবন্দি অর্ধগলিত একটি লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। লাশটি অপহৃত নাজমুলের বলে তার পরিবারের লোকজন শনাক্ত করেছে।

শেয়ার করুন

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *