জুলাই ২৭, ২০২১
১১:০৯ অপরাহ্ণ
সিলেট ডিবি পুলিশের অভিযানে বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্য উদ্ধার

সিলেট ডিবি পুলিশের অভিযানে বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্য উদ্ধার

সিলেটের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন পিপিএম দিকনির্দেশনায় কানাইঘাটে পৃথক অভিযান চালিয়ে ২ লক্ষ ১০ হাজার আমদানি নিষিদ্ধ শেখ নাসির বিড়ি এবং ১০ বোতল অফিসার চয়েজ মদসহ আধা কেজি গাজা উদ্ধার করেছে জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)।
সোমবার (২৬ জুলাই) রাত অনুমান সাড়ে এগারোটায় এ অভিযান চালানো হয়।

জেলা গোয়েন্দা শাখা উত্তর এর অফিসার ইনচার্জ সাইফুল আলম এর নেতৃত্বে ডিবির টিম কানাইঘাট থানাধীন বীরদল এলাকায় গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে এসআই মিজানুর রহমান সরকার ও এসআই নিতাই রায় চেকপোস্ট পরিচালনা করে, এ সময় একটি পিকআপে থাকা কয়েকজন চোরাকারবারি চলন্ত গাড়ি থেকে লাফ দিয়ে দ্রুত পালিয়ে যায়।

পরে পিকআপ তল্লাশি করে আমদানি নিষিদ্ধ ২ লাখ ১০ হাজার শলাকা ভারতীয় নাসির বিড়ি উদ্ধার করে। উদ্ধারকৃত নাসির বিড়ি আনুমানিক বাজার মূল্য ৪,২০০০০/- টাকা। একইসাথে চোরাচালান পরিবহন করা পিকআপ গাড়ি টি জব্দ করে পুলিশ।

এ ঘটনায় জেলা গোয়েন্দা শাখা উত্তর এর এসআই নিতাই লাল রায় বাদী হয়ে কানাইঘাট থানা বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা দায়ের করেছে।

অপরদিকে রাত নয় ঘটিকার সময় জেলা গোয়েন্দা শাখা উত্তর এর এসআই মিজানুর রহমান সরকার নেতৃত্বে কানাইঘাট থানাধীন আগফৌদ নারায়নপুর গ্রামের চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী খাইরুল ইসলাম এর বসতবাড়িতে অভিযান চালায় অপর একটি টিম।

এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে খয়রুল পালিয়ে যায় । পরে আশপাশের লোকজনের উপস্থিতিতে বসতবাড়ি তল্লাশি করে প্রতিটি ৭৫০ মি:লি: করে ১০ বোতল ভারতীয় অফিসার চয়েজ মদ এবং আধা কেজি গাজা উদ্ধার করে।
পলাতক আসামি খয়রুল ইসলামের বিরুদ্ধে ইতিপূর্বে মাদকব্যবসার অভিযোগে চারটি মামলা বিচারাধীন রয়েছে। এ ঘটনায় এস আই মিজানুর রহমান সরকার বাদী হয়ে পলাতক আসামির বিরুদ্ধে কানাইঘাট থানা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করেছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর ও মিডিয়া) মোঃ লুৎফুর রহমান। তিনি জানান সীমান্ত এলাকায় চোরাচালান ও মাদক ব্যবসা বন্ধ করতে পুলিশ সুপার মহোদয়ের নির্দেশে ডিবি নিয়মিত অভিযান করে আসছে, এরই ধারাবাহিকতায় গতকাল কানাইঘাট থানায় একাধিক অভিযানে বিপুল পরিমাণ ভারতীয় নাসির বিড়ি, অফিসার চয়েজ মদ এবং গাজা উদ্ধার করেছে ডিবি। উক্ত ঘটনায় পলাতক আসামিদের গ্রেপ্তার করতে অভিযান অব্যাহত আছে।

শেয়ার করুন

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *